রোববার,  ২৫ আগস্ট ২০১৯  | সময় লোডিং...
প্রকাশ : ১৪ আগস্ট ২০১৯, ১১:৫১:৫৭

যুদ্ধে ভারতের জয় চেয়ে সমালোচনার মুখে প্রিয়াংকা

ডেস্ক রিপোর্ট
ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে এক তীব্র উত্তেজনার সময় ভারতকে যুদ্ধে উৎসাহ দেয়ার অভিযোগ উঠেছে বলিউড অভিনেত্রী প্রিয়াংকা চোপড়ার বিরুদ্ধে।
সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের লস এঞ্জেলেসে প্রিয়াংকা 'বিউটিকন’ নামের সৌন্দর্য বিষয়ক এক সম্মেলন হাজির হলে সেখানে এক পাকিস্তানি-আমেরিকান নারী তাকে 'ভণ্ড' বলে অভিহিত করেন।
প্রিয়াংকা গত ফেব্রুয়ারি মাসে "জয়-হিন্দ#ইন্ডিয়ান-আর্মড-ফোর্সেস" লিখে টুইট করেছিলেন। সে সময় দুই পরমাণু শক্তিধর প্রতিবেশীর মধ্যে তীব্র সামরিক উত্তেজনা চলছিল।
আয়েশা ওই অনুষ্ঠানে বলেন, ‘আপনি যখন মানবতার কথা বলেন, তখন সেটা শুনতে বেশ খারাপ লাগে, কারণ আপনার প্রতিবেশি হিসেবে, একজন পাকিস্তানি হিসেবে আমি জানি, আপনি একজন ভণ্ড।’
আয়েশা তার সঙ্গে প্রিয়াংকার এই কথাবার্তার ভিডিও টুইটারে পোস্ট করেছেন। গত ফেব্রুয়ারিতে প্রিয়াংকা টুইটের উদ্ধৃতি দিয়ে তিনি বলেন, ‘আপনি ইউনিসেফের শান্তির দূত। আর আপনি কী না পাকিস্তানের বিরুদ্ধে পরমাণু যুদ্ধে উৎসাহ দিচ্ছেন। এই যুদ্ধে তো কেউ জয়ী হবে না।’
এ কথা বলার পর আয়েশার হাত থেকে মাইক কেড়ে নেয়া হয়। প্রিয়াংকা ২০১৬ সাল থেকে ইউনিসেফের শান্তির দূত।
এ বছরের শুরুতে যখন এক হামলায় ৪০ জন ভারতীয় সেনা নিহত হয়, তখন ভারত আর পাকিস্তানের সম্পর্কের মারাত্মক অবনতি ঘটে। পাকিস্তানভিত্তিক একটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠী এই হামলা চালায় বলে দাবি করা হয়। এর প্রতিশোধ নিতে ভারত যখন পাকিস্তানের ভেতর হামলা চালায় তখন প্রিয়াংকা টুইট করে তার প্রশংসা করেছিলেন।
আয়েশার অভিযোগের উত্তরে প্রিয়াংকা বলেন, ‘পাকিস্তানে আমার অনেক বন্ধু আছে। আমি ভারতের লোক। আমি যুদ্ধের ভক্ত নই, কিন্তু আমি দেশপ্রেমিক। কাজেই আমার কথা শুনে যদি আমাকে ভালোবাসে এমন কারও অনুভূতিতে আঘাত লেগে থাকে, আমি দুঃখিত। আমি মনে করি আমাদের সবাইকে আসলে এক ধরণের মাঝামাঝি পথে হাঁটতে হবে।’
তিনি আয়েশার উদ্দেশে আরো বলেন, ‘এই মেয়ে, চিৎকার করো না। আমরা সবাই এখানে ভালোবাসার জন্য এসেছি। নিজেকে বিব্রত করো না। তোমার প্রশ্নের জন্য ও তোমার উৎসাহের জন্য তোমাকে ধন্যবাদ।’ -বিবিসি
এই পাতার আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদসর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ

প্রকাশক: নাহিদা আকতার জাহেদী

১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Powered by orangebd.com