মঙ্গলবার,  ১৬ জুলাই ২০১৯  | সময় লোডিং...
প্রকাশ : ০৮ জুলাই ২০১৯, ১২:৫৯:৫৩

দুই ভাগ হয়ে গেলো এলআরবি

এতোদিনের জল্পনাকল্পনাটাই সঠিক হয়ে দাঁড়ালো। আইয়ুব বাচ্চুর দীর্ঘদিনের চার সঙ্গী দুই ভাগে ভাগ হয়ে গেছেন। ভেঙে গেলো দেশের জনপ্রিয় ব্যান্ড দল। এলআরবি। সদস্যদের সঙ্গে কথা বলে নিশ্চিত, এলআরবি ভেঙেই গেছে। দুজন এক দিকে, বাকি দুজন অন্যদিকে। 
গিটারিস্ট মাসুদ ও ব্যবস্থাপক শামীম আর এলআরবির সঙ্গে আর নেই। অন্যদিকে, এলআরবি নিয়ে এগোতে চান ড্রামার রোমেল ও প্রতিষ্ঠাতা সদস্য গিটারিস্ট স্বপন। গতকাল রোববার সন্ধ্যায় সদস্যদের সঙ্গে কথা বললে তাঁরা নিশ্চিত করেন থাকা না–থাকার বিষয়টি।
আইয়ুব বাচ্চুর মৃত্যুর পর এলআরবি নিয়ে চিন্তিত ব্যান্ডটির ভক্তরা। তাঁদের চিন্তা ছিল, এখন কী করে এলআরবি চলবে? অনেক শঙ্কার মাঝে হঠাৎ জানা গেল, বালামকে এলআরবি ব্যান্ডের নতুন ভোকাল। এমন ঘোষণায় চমকে ওঠেন সবাই। এরপর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমেও তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েন বালাম। বালামকে নিয়ে এলআরবি সদস্যরা দলের নাম বদল করতে বাধ্য হন।
সম্প্রতি এলআরবি সদস্যরাসহ নাম বদলে ‘বালাম অ্যান্ড দ্য লিগ্যাসি’ গঠন করেন। এ বিষয়েও অনেক জল ঘোলা হয়। এলআরবি ব্যান্ডে বালামের অন্তর্ভুক্তির পর ‘বালাম অ্যান্ড দ্য লিগ্যাসি’র ঘটনা চলার মধ্যেই পরিবারের পক্ষ থেকে এ বছর ১৭ এপ্রিল ছেলে আহনাফ তাজওয়ার আইয়ুব জানান, এলআরবি অথবা ‘বালাম অ্যান্ড দ্য লিগ্যাসি’র সদস্যরা চাইলে এলআরবি নামে গান করতে পারেন। এ নিয়ে তাঁদের কোনো বাধা নেই। এরপর এলআরবি সদস্যরা বালামকে নিয়ে এগিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেন। কিন্তু কিছুদিন ধরে দৃশ্যপট বদলাতে থাকে। ব্যান্ডের সদস্যদের একে অপরের মধ্যে অনাস্থা তৈরি হতে থাকে।
এলআরবি ব্যবস্থাপক শামীম আহমেদ বলেন, ‘আমি আর এলআরবির সঙ্গে নেই। যাঁরা আছেন তাঁদের জন্য শুভকামনা।’ কখনো এলআরবি নিয়ে আবার গানের দল করার চিন্তাভাবনা আছে? শামীম বলেন, ‘সে রকম কোনো চিন্তাভাবনা নেই।’
মাসুদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘এলআরবি আসলে কার? আমি তো বলব, বস (আইয়ুব বাচ্চু) নেই, এলআরবিও নেই।’
এদিকে বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে, বালাম আর এলআরবি কিংবা ‘বালাম অ্যান্ড দ্য লিগ্যাসি’ কোনোটির সঙ্গে নেই। তিনি তাঁর মতো করে আবার গানের জগতে ব্যস্ত হয়ে উঠেছেন। এরই মধ্যে স্টেজ শোও শুরু করেছেন।
 
এই পাতার আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদসর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ

প্রকাশক: নাহিদা আকতার জাহেদী

১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Powered by orangebd.com