যৌন হেনস্থার প্রতিবাদ করুন...

কৃতি শ্যানন

কৃতি শ্যানন

মি টু নিয়ে এবার সরব হলেন বলিউড অভিনেত্রী কৃতি শ্যানন। বলিউড কিংবা যেকোনো জায়গাতেই যৌন হেনস্থার বিরুদ্ধে জোরদার আইনি পদক্ষেপ নেওয়া উচিত বলেও মনে করেন তিনি।

বলিউডে যৌন হেনস্থা নিয়ে কৃতি বলেন, কোথাও কোনো যৌন হেনস্থার মতো ঘটনা ঘটলে, বিষয়টি নিয়ে তখনই প্রতিবাদ করা উচিত। যৌন হেনস্থার পর কখনও মুখ বন্ধ করে রাখা উচিত নয়। 

তিনি বরাবরই বিষয়টি নিয়ে প্রতিবাদ করার কথা বলেছেন বলে দাবি করেন 'হাউজফুল ৪'-এর অভিনেত্রী।

কৃতি বলেন, তিনি কখনো এই ধরনের সমস্যার সম্মুখীন হননি, এক কথা ঠিক। কিন্তু কেউ এই ঘটনার মধ্যে পড়লে, দোষীর উপযুক্ত শাস্তির ব্যবস্থা করা উচিত। শুধু তাই নয়, যৌন হেনস্থার বিরুদ্ধে জোরদার আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করা উচিত। সে বলিউড হোক বা অন্য কোনও জায়গায়। এই ধরনের ঘটনার প্রতিবাদ সব সময় করা উচিত।


সম্প্রতি মি টু নিয়ে তোলপাড় হয়ে যায় বলিউড। তনুশ্রী দত্ত থেকে বিদ্যা বালান কিংবা রাধিকা আপতে, বলিউডের একাধিক অভিনেত্রী বিভিন্ন সময় মুখ খোলেন যৌন হেনস্থার প্রতিবাদে। যার জেরে মুখোশ খুলেছিল বলিউডের বড় বড় তারকা প্রযোজক-পরিচালকদের। এমনকি ‘হাউসফুল ৪’ ছবির পরিচালক সাজিদ খানকেও বরখাস্ত করা হয়েছিল টিম থেকে। এবার সেই ছবিরই অভিনেত্রী কৃতি মুখ খুললেন যৌন হেনস্তা নিয়ে।

সম্প্রতি, মুক্তি পেয়েছে ‘হাউসফুল ৪’ ছবির ‘এক চুম্মা’ নামের গানটি। যেই গানের লিরিকসে দেখা দিয়েছে ছবির কেন্দ্রীয় পুরুষ চরিত্ররা তাদের নায়িকাদের কাছ থেকে চুম্বন প্রার্থনা করছেন। আর এতেই ঘটেছে যত বিপত্তি! অনেকেই সমালোচনা করে বলেছেন এই গানটি যৌন আবেদনমূলক। এছাড়া নারীদেরও অসম্মান করা হয়েছে। 

এই প্রসঙ্গেই এক সাক্ষাৎকারে কৃতি বলেছেন, ‘এই গানে যদি সত্যিই মহিলাদের ছোট করা হত, তাহলে সবার আগে আমি সরব হতাম।’ -জি নিউজ


মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার

© 2019 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh