বরিশালে ক্লু-লেস হত্যা মামলার রহস্য উদঘাটন

বরিশালে হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার দুই আসামী। ছবি: সাম্প্রতিক দেশকাল

বরিশালে হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার দুই আসামী। ছবি: সাম্প্রতিক দেশকাল

বরিশাল নগরীতে একটি ক্লু-লেস হত্যা মামলার রহস্য উদঘাটন করেছে মেট্রোপলিটন এয়ারপোর্ট থানা পুলিশ। হত্যাকান্ডের ৪৫ দিনের মাথায় ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেল চালক রিয়াজুল হক সরদারের হত্যাকারী দুই আসামীকে গ্রেফতার করেছে তারা। সেই সাথে ছিনতাই হওয়া তার মোটরসাইকেলটিও পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।

এই ঘটনায় গ্রেফতারকৃত দুই আসামী আদালতে স্বীকারক্তিমুলক জবানবন্দি দিয়েছে। পরে তাদের কারাগারে প্রেরণ করা হয়। তবে এখনো আত্মগোপনে রয়েছে হত্যার মিশনে থাকা অপর তিন আসামী।

গ্রেফতারকৃতরা হলো- বাবুগঞ্জ উপজেলার চাঁদপাশা ইউনিয়নের শ্রীমন্ত রায় চৌকিদার বাড়ির বাসিন্দা মৃত আব্দুল হাকিম চৌকিদারের ছেলে মো. রুবেল চৌকিদার (২১) ও একই উপজেলার রহমতপুর ইউনিয়নের লোহালিয়া বালুর মাঠ এলাকার বাসিন্দা মো. সফিকুল ইসলামের ছেলে মো. মিলন (১৮)।

আজ শনিবার বিকেলে নগরীর নথুল্লাবাদ এলাকায় লুফর রহমান সড়কে মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার (উত্তর) এর কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে উপ-পুলিশ কমিশনার মো. মোকতার হোসেন(সেবা) এই তথ্য জানিয়েছেন।

উপ-পুলিশ কমিশনার বলেন, গত ৬ সেপ্টেম্বর রাত ২টার দিকে নগরীর কাউনিয়া থানাধীন মড়ক খোলার পুল সংলগ্নের বাসিন্দা মো. রিয়াজুল হক সরদার লঞ্চঘাট হতে ভাড়ায় লোক আনা নেয়ার জন্য বাসা থেকে বের হয়। পরে সকাল ১১টার দিকে এয়ারপোর্ট থানাধীন বাবুগঞ্জ উপজেলার লাকুটিয়া এলাকার তালতলা মোড় রাস্তার পাশে ডোবা থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়।

এই ঘটনায় নিহতের স্ত্রী এয়ারপোর্ট থানায় অজ্ঞাতনামা আসামি করে স্বামী হত্যা করে মোটর সাইকেল ছিনতাই’র অভিযোগ এনে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই মামলার সূত্র ধরে এয়ারপোর্ট থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আব্দুর রহমান মুকুলের নেতৃত্বে একটি চৌকশ টিম হত্যার রহস্য উদঘাটনে নেমে পড়েন। তারা আধুনিক তথ্য প্রযুক্তির পাশাপাশি সনাতন পদ্ধতি ব্যবহার করে হত্যা ও মোটরসাইকেল ছিনতাই’র ঘটনায় জড়িত দু’জনকে গ্রেফতার করে।

এর মধ্যে ১৯ সেপ্টেম্বর দুপুর দুই টার দিকে বাবুগঞ্জের চাঁদপাশা ইউনিয়নের ঘটকের চর এলাকা হতে মো. রুবেল চৌকিদার (২১) ও ২০ সেপ্টেম্বর রাত সোয়া ১০টার দিকে বাবুগঞ্জের লোহালিয়া এলাকার মীরগঞ্জ ফেরীঘাট এলাকা থেকে মো. মিলন (১৮) কে গ্রেফতার করা হয়। এর আগেই নগরীর ত্রিশ গোডাউন এলাকা থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে রিয়াজুল হক সরদারের ছিনতাই হওয়া মোটরসাইকেলটি।

উপ-পুলিশ কমিশনার জানিয়েছেন, ‘মোটরসাইকেল ছিনতাই এবং হত্যাকান্ডের সঙ্গে মোট ৫ জন জড়িত রয়েছে বলে গ্রেফতারকৃত আসামীরা আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে। তবে তদন্তের সার্থে পলাতক তিন আসামীর নাম পরিচয় গোপন রাখা হয়েছে। তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার

© 2019 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh